• বৃহস্পতিবার   ০৬ মে ২০২১ ||

  • বৈশাখ ২৩ ১৪২৮

  • || ২৩ রমজান ১৪৪২

সর্বশেষ:
আজ থেকে চলবে গণপরিবহন, মানতে হবে নির্দেশনা চাপ সামলে উঠছে অর্থনীতি, রেমিট্যান্স ও রিজার্ভে রেকর্ড ‘কৃষকের অ্যাপ’ দিয়ে ধান ক্রয় কার্যক্রমের উদ্বোধন ‘স্বাধীনতা স্তম্ভ নির্মাণ’ করতে সোহরাওয়ার্দীর গাছ কাটা হয়েছে’ পরিকল্পনা প্রণয়নে সরকারের উচ্চ পর্যায়ের কাজ শুরু

পঞ্চগড়ে রংধনু ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে সড়কে সাজানো ইফতারের প্যাকেট   

প্রকাশিত: ২৯ এপ্রিল ২০২১  

মাগরিবের আজানের ঠিক আগ মুহূর্তে সড়কে থরে থরে সাজানো ইফতারের প্যাকেট আর পানির বোতল। নিতে পারবেন শুধুমাত্র দরিদ্র শ্রমজীবী ও অসহায় মানুষরা। এমন মহৎ উদ্যোগ নিয়েছেন পঞ্চগড়ের কিছু উদ্যমী তরুণ। স্বেচ্ছাসেবী তরুণদের এ সংগঠনের নাম রংধনু ফাউন্ডেশন।

চলছে রমজান মাস। সংসারের খাবার জোগাতে অনেকেরই বাড়িতে গিয়ে ইফতার করার সুযোগ হয়ে ওঠে না। তাদের জন্য পঞ্চগড়ের রংধনু ফাউন্ডেশনের সদস্যরা নিয়েছেন বিশেষ এক উদ্যোগ। তারা ইফতারের আধা ঘণ্টা আগে জেলা সদরের বিভিন্ন স্থানে থরে থরে সাজিয়ে রাখছেন ইফতার। সেখানে পানির বোতলের সঙ্গে থাকছে খিচুড়ি, ডিম, খেজুর, বেগুনি, আলুর চপ, পিঁয়াজুসহ আরো অনেক কিছু।

শ্রমজীবী মানুষরা ইফতারের সময় নিজেরাই তুলে নিয়ে যাচ্ছেন রংধনুর এ ইফতার। আবার কারো হাতে তুলে দিচ্ছেন তরুণরা। দশম রোজা থেকে তারা এ কার্যক্রম হাতে নেন।

তাদের ব্যানারে লেখা রয়েছে ‘ফিফটি ফর পুওর’। শুরুতে প্রতিদিন ৫০ জনের জন্য এ আয়োজন করা হলেও ক্রমেই বাড়তে থাকে সংখ্যা। সড়কের পাশাপাশি বিভিন্ন এতিমখানাতেও ইফতার বিতরণ করছেন তারা। সারাদিন রোজা রাখার পর ইফতারের আগ মুহূর্তে মানসম্পন্ন ইফতার পেয়ে খুশি দরিদ্র শ্রমজীবী ও অসহায় মানুষরা।

আয়োজকরা জানান, কলেজ পড়ুয়া শিক্ষার্থীদের নিয়ে গঠিত হয়েছে রংধনু ফাউন্ডেশন। তারা নিজেদের হাত খরচের টাকা বাঁচিয়ে দরিদ্র মানুষের ইফতারের এ কর্মসূচি হাতে নিয়েছেন। শেষ রোজা পর্যন্ত তারা চালিয়ে যাবেন এ কাজ। মানুষকে ভালোবেসে নিজেদের ছোট্ট সামর্থ্যটুকু দিয়েই দরিদ্রদের পাশে দাঁড়াতে দৃঢ় প্রতিজ্ঞ এ সংগঠনের সদস্যরা।
রিকশাচালক শাহজাহান মিয়া বলেন, সংসার চালাতে আমাদের সবসময় পথে-ঘাটেই থাকতে হয়। তাই বেশিরভাগ সময় বাইরে ইফতার করতে হয়। কয়েকজন ছাত্রছাত্রী আমাদের মতো শ্রমজীবীদের জন্য ইফতারের যে উদ্যোগ নিয়েছেন সেজন্য তাদের ধন্যবাদ জানাই।

ভ্যানচালক রবিউল ইসলাম বলেন, ইফতারের আগ মুহূর্তে দেখলাম কিছু তরুণ আমাদের মতো শ্রমজীবী ও অসহায় মানুষের জন্য সড়কে ইফতার সাজিয়ে রেখেছেন। আমি কাছে যেতেই তারা আমাকে একটি ইফতারের প্যাকেট ও পানির বোতল তুলে দিলেন।

পঞ্চগড় সদর উপজেলার শিংপাড়া এলাকার শাহীন উদ্দিন বলেন, তরুণদের ব্যতিক্রমী এ উদ্যোগ সত্যিই প্রশংসনীয়। এভাবে বিত্তবানরা সমাজের দরিদ্র ও অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়ালে তাদের জীবনযাপন অনেকটা সহজ হয়ে যেতো।

পঞ্চগড় রংধনু ফাউন্ডেশনের সাধারণ সম্পাদক ফাহিম হাসান বলেন, আমরা কলেজ পড়ুয়া শিক্ষার্থীরা মিলেই এ সংগঠন গড়েছি। আমরা চাই আমাদের স্বল্প সামর্থ্য দিয়ে দরিদ্র ও অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়াতে। তাই রমজানে আমাদের সদস্যরা সবাই যে যার মতো টাকা দিয়ে ইফতার বিতরণের উদ্যোগ নেন। পুরো রমজান মাস জুড়েই আমরা এ কর্মসূচি চলমান রাখবো।

– দৈনিক পঞ্চগড় নিউজ ডেস্ক –