ব্রেকিং:
বাংলাদেশ বিশ্বে উন্নয়নশীল দেশের মর্যাদা নিয়ে চলবে: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা
  • মঙ্গলবার   ০২ মার্চ ২০২১ ||

  • ফাল্গুন ১৮ ১৪২৭

  • || ১৮ রজব ১৪৪২

সর্বশেষ:
পোশাক খাতে ভিয়েতনামকে পেছনে ফেলল বাংলাদেশ বঙ্গবন্ধু হাইটেক সিটিতে মানবদেহের প্লাজমা প্ল্যান্ট নির্মাণ শুরু দেশে প্রথমবারের মতো চালু হয়েছে `বঙ্গবন্ধু শিক্ষাবীমা` আইসিজেতে বাংলাদেশকে দেয়া সহায়তা অব্যাহত রাখবে ওআইসি নারীদের জন্য ‘বঙ্গমাতা পদক’

পঞ্চগড় জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে কিশোরীদের মার্শাল আর্ট প্রশিক্ষণ   

প্রকাশিত: ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০২১  

মুজিববর্ষে পঞ্চগড় জেলা প্রশাসনের বিশেষ উদ্যোগ কন্যারত্ন, প্রজনন স্বাস্থ্য শিক্ষা, বাল্যবিয়ের কুফল ইত্যাদির পাশাপাশি তাদের পারদর্শিতার সাথে যোগ হলো আর একটি নতুন পর্ব। এবারে আত্মরক্ষার প্রাথমিক কলাকৌশল হিসেবে ব্যুত্থান মার্শাল আর্ট।

প্রাথমিকভাবে জেলার পাঁচ উপজেলার ৫শ কিশোরীকে আত্মরক্ষা ও ক্ষমতায়নে ব্যুত্থান মার্শাল আর্ট প্রশিক্ষক হিসাবে প্রশিক্ষণ দেয়া হবে। এ উপলক্ষে শুক্রবার বোদা পাইলট গার্লস স্কুল অ্যান্ড কলেজ মাঠে প্রধান অতিথি হিসেবে দুই দিনব্যাপী এ প্রশিক্ষণের উদ্বোধন করেন রেলমন্ত্রী এ্যাডভোকেট নূরুল ইসলাম সুজন এমপি।

এ উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়ে তিনি বলেন, কন্যারত্ন এখন পঞ্চগড় জেলার ব্রান্ড হয়ে উঠেছে। বাল্য বিবাহ বন্ধ, প্রজনন স্বাস্থ্য বিষয়ে এসব কন্যা রত্ন জেলা প্রশাসকের অ্যাম্বাসেডর হিসেবে নিজেরা সনচেতন হচ্ছে এবং অন্যদের সচেতন করছে। তিনি বিশ্বাস করেন এ উদ্যোগ মেয়েদের আত্মবিশ্বাস বাড়িয়ে তুলে তাদেরকে সামনের দিকে এগিয়ে যেতে সহায়ক হবে।

জেলা প্রশাসক ড. সাবিনা ইয়াসমিনের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে পুলিশ সুপার মোহাম্মদ ইউসুফ আলী, উপজেলা চেয়ারম্যান মো. ফারুক আলম টবি, বোদা পৌর মেয়র এ্যাডভোকেট ওয়াহিদুজ্জামান সুজা, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মো. আজাদ জাহান, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. সোলায়মান আলী ও বোদা পাইলট গার্লস স্কুল অ্যান্ড কলেজের প্রধান শিক্ষক রবিউল আলম সাবুল, প্রশিক্ষক ড. ম্যাক ইউরি বজ্রমুণি ও ক্যাপ্টেন (অবঃ) শাহনাজ জাহান বক্তব্য রাখেন।

দুই দিনব্যাপী প্রশিক্ষণে উপজেলার একশ জন কিশোরী অংশ নিচ্ছে। আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন প্রশিক্ষক ড. ম্যাক ইউরি বজ্রমুণি ও ক্যাপ্টেন শাহনাজ জাহান প্রশিক্ষণ পরিচালনা করছেন।

জেলা প্রশাসক ড. সাবিনা ইয়াসমিনের উদ্যোগে মুজিববর্ষে নারীর ক্ষমতায়নে বাল্য বিয়ে রোধে শিক্ষা সহায়ক উপকরণ হিসেবে জেলার স্কুলগামী ১৭০০ কিশোরীকে বাইসাইকেল প্রদান করা হয়। তাদের নাম দিয়েছে কন্যারত্ন, জেলা প্রশাসকের অ্যাম্বেসেডর। প্রজনন স্বাস্থ্য সেবা ও বাল্য বিয়ে কুফলের উপর জোর দিয়ে জুম অ্যাপের মাধ্যমে জেলা প্রশাসকের কার্যালয় থেকে উঠান বৈঠক পরিচলনা করা হচ্ছে। দেশের বিভিন্ন কর্নার থেকে নারী বিশেষজ্ঞ, প্রজনন স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞ, সরকারি কর্মকর্তা, স্পিকার, মন্ত্রী, সচিব, সাংবাদিক, শিক্ষক, এনজিও ব্যক্তিত্ব, সফল মা, পরিবার পরিকল্পনা কর্মকতারা সংযুক্ত হচ্ছেন।

ইউনিয়ন পর্যায় থেকে নির্বাচিত অ্যাম্বেসেডর কন্যারত্ন কিশোরীরা সংযুক্ত হচ্ছেন।

– দৈনিক পঞ্চগড় নিউজ ডেস্ক –