• মঙ্গলবার ২১ মে ২০২৪ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ৭ ১৪৩১

  • || ১২ জ্বিলকদ ১৪৪৫

চাষিরা ন্যায্যমূল্য না পেলে চা কারখানা বন্ধের হুঁশিয়ারি

প্রকাশিত: ২ সেপ্টেম্বর ২০২৩  

পঞ্চগড়ের সমতলে উৎপাদিত চা পাতার ন্যায্যমূল্য নিশ্চিত করতে কারখানা মালিকদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন রেলমন্ত্রী অ্যাডভোকেট নূরুল ইসলাম সুজন। যদি কোনো চা কারখানা চাষিদের ন্যায্যমূল্য থেকে বঞ্চিত করে, তাহলে সেই কারখানা বন্ধ করে দেওয়া হবে বলে হুঁশিয়ারিও দিয়েছেন তিনি। 

শনিবার (২ সেপ্টেম্বর) দুপুরে দেশের তৃতীয় চা নিলাম কেন্দ্রের উদ্বোধন উপলক্ষ্যে পঞ্চগড় সরকারি অডিটোরিয়ামে আয়োজিত অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন। স্মল টি গার্ডেন ওনার্স অ্যান্ড টি ট্রেডার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে রেলমন্ত্রী নূরুল ইসলাম সুজন বলেন, ১৯৯৬ সালে আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসার পর মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাত ধরে চা চাষাবাদ শুরু হয়। চা উৎপাদনে সিলেট এবং চট্টগ্রামের পর আমাদের পঞ্চগড় তৃতীয়। কিন্তু চা-চাষিরা আজ পর্যন্ত তাদের উৎপাদিত চায়ের ন্যায্যমূল্য পাননি। দীর্ঘদিন ধরে ন্যায্যমূল্য নিশ্চিত করতে চাষিরা আন্দোলন করছেন। 

তিনি আরও বলেন, সিলেট এবং চট্টগ্রামে চা বাগান মালিকদের নিজস্ব ফ্যাক্টরি আছে। কিন্তু পঞ্চগড়ে সব প্রান্তিক চাষি এবং প্রান্তিক পর্যায়ে চাষ। এখানে স্মল টি গার্ডেন ওনার্স অ্যান্ড টি ট্রেডার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ রয়েছে। চাষিদের নিজস্ব কোনো ফ্যাক্টরি নেই। 

নূরুল ইসলাম সুজন বলেন, আমরা জনপ্রতিনিধি আমরা জনগণের লাভ দেখতে চাই। আজকে পঞ্চগড়ে দেশের তৃতীয় চা নিলাম কেন্দ্রের উদ্বোধন করা হলো। কিন্তু এই চা নিলাম কেন্দ্র যদি চাষিদের উপকারে না আসে, চাষিরা যদি লাভবান না হন, তাহলে এটি মূল্যহীন। শুধু ভালো দাম পাওয়ায় চাষিরা চা চাষাবাদ থেকে মুখ ফিরিয়ে নিয়েছে। 

এ সময় চা পাতার মূল্য নির্ধারণ নিয়ে সিন্ডিকেট বন্ধ করতে সরকারের বাণিজ্য মন্ত্রণালয়সহ সংশ্লিষ্টদের প্রতি আহ্বান জানিয়ে রেলমন্ত্রী বলেন, সব জায়গাতেই সিন্ডিকেট রয়েছে, এখন সেটা চায়েও দেখা যাচ্ছে। লোকসানের কারণে ইক্ষু চাষিরা মুখ ফিরিয়ে নিয়েছে। এখন চা-চাষেও একই অবস্থার আশঙ্কা করা হচ্ছে। নিলাম কেন্দ্র চালু হলো এরপরও যদি ন্যায্যমূল্য না পাওয়া যায় তাহলে ফ্যাক্টরি বন্ধ করে দেওয়া হবে।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি। বিশেষ অতিথি ছিলেন পঞ্চগড় -১ আসনের সংসদ সদস্য মো. মজহারুল হক প্রধান, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব তপন কান্তি ঘোষ, বাংলাদেশ চা বোর্ডের চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল মো. আশরাফুল ইসলাম, রংপুর বিভাগীয় কমিশনার হাবিবুর রহমান, পঞ্চগড়ের সাবেক জেলা প্রশাসক মুহাম্মদ রবিউল ইসলাম। সভাপতিত্ব করেন জেলা প্রশাসক মো. জহুরুল ইসলাম।

স্বাগত বক্তব্য দেন স্মল টি গার্ডেন ওনার্স অ্যান্ড টি ট্রেডার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ পঞ্চগড়ের সভাপতি আমিরুল হক খোকন। অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন জেলা পুলিশ সুপার এস এম সিরাজুল হুদা, জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মো. আব্দুল হান্নান শেখ, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. আনোয়ার সাদাত সম্রাট। 

এর আগে বেলা সোয়া ১১টার দিকে পঞ্চগড় সরকারি অডিটোরিয়াম চত্বরে আনন্দঘন পরিবেশে বেলুন ও পায়রা উড়িয়ে দেশের তৃতীয় চা নিলাম কেন্দ্রের উদ্বোধন করা হয়। দীর্ঘ ২৩ বছর ধরে সমতলে চা-চাষ করে অর্থনৈতিক সমৃদ্ধি ও কর্মসংস্থান সৃষ্টিতে এগিয়ে থাকা পঞ্চগড়বাসী নতুন এই নিলাম কেন্দ্র পেয়ে আনন্দিত।

– দৈনিক পঞ্চগড় নিউজ ডেস্ক –