• শুক্রবার   ১২ আগস্ট ২০২২ ||

  • শ্রাবণ ২৭ ১৪২৯

  • || ১২ মুহররম ১৪৪৪

সর্বশেষ:
শোক দিবসের অনুষ্ঠানে মাস্ক-টিকা সনদ বাধ্যতামূলক অর্থনীতিতে স্বস্তির আভাস মিলেছে: গভর্নর সরকারি ওষুধ চুরি করে বিক্রি করলে ১০ বছরের জেল প্রহরীর গলা কাটা মরদেহ, পার্কের মালিকসহ গ্রেপ্তার ৩ আন্তর্জাতিক গণিত প্রতিযোগিতায় ৫ বাংলাদেশি শিক্ষার্থীর অনন্য অর্জন

দেবীগঞ্জে মাদরাসার ডাল-আলু খেয়ে ১৪ ছাত্রসহ অধ্যক্ষ অসুস্থ 

প্রকাশিত: ১৬ মার্চ ২০২২  

পঞ্চগড়ের দেবীগঞ্জে একটি কওমি মাদরাসার খাবার খেয়ে ১৪ জন ছাত্রসহ অধ্যক্ষ ও বাবুর্চি অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন।

গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ঐ দেবীগঞ্জ উপজেলার আল জামিয়াতুল ইসলামিয়া দারুল উলুম মজাহেরুল ইসলাম কওমি মাদরাসা ও এতিম খানায় এ ঘটনা ঘটে। বুধবার সকালে হাসপাতালে তাদের চিকিৎসা দেওয়া হয়।

অসুস্থরা সবাই দেবীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি রয়েছেন। খাদ্যে বিষক্রিয়ার কারণে এ ঘটনা ঘটতে পারে, তবে তাদের শারীরিক অবস্থা আশঙ্কামুক্ত বলে জানান চিকিৎসকরা।

মাদরাসা ও স্থানীয় সূত্র জানায়, মঙ্গলবার বিকেলে ঐ মাদরাসার অধ্যক্ষ, বাবুর্চিসহ ছাত্রদের পেট ব্যথা ও বমি শুরু হয়।

মাদরাসার অধ্যক্ষ মো. আসাদুজ্জামান বলেন, প্রতিদিনের মতো মঙ্গলবার দুপুরেও মাদরাসার বাবুর্চি জামিলা বেগম রান্না করেন। আড়াইটার দিকে আমরা মসুর ডাল ও আলু একসঙ্গে রান্না করা ডাল দিয়ে ভাত খাই। দুই আড়াই ঘণ্টা পর প্রায় সবার পেটে শুরু হয়, মাথাও ঘোরাচ্ছিল। এরপর কয়েকবার বমি হয়। সন্ধ্যার আগে হাসপাতালে নেয়া হয়।

দেবীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. হাসিনুর রহমান বলেন, ঐ মাদরাসার শিক্ষক ছাত্রসহ ১৬ জন বমি, পেট ব্যথা ও দুর্বলতা নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হন। অতিরিক্ত বমির কারণে অনেকে দুর্বল হয়ে পড়েন। তাদের চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। বুধবার সকাল থেকে তাদের অবস্থা উন্নতির দিকে। ফুড পয়জনিং-এর কারণে এমন হতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

– দৈনিক পঞ্চগড় নিউজ ডেস্ক –