• মঙ্গলবার   ২৪ মে ২০২২ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ৯ ১৪২৯

  • || ২১ শাওয়াল ১৪৪৩

সর্বশেষ:
মহামারি মোকাবিলায় বিশ্বকে এক হয়ে কাজ করার ডাক প্রধানমন্ত্রীর সরকারি ব্যবস্থাপনায় হজযাত্রী নিবন্ধনের সময় আরো বেড়েছে সরকারি ব্যবস্থাপনায় হজযাত্রী নিবন্ধনের সময় আরো বেড়েছে দেশে সন্দেহজনক মাংকিপক্স রোগীদের আইসোলেশনের নির্দেশ রংপুর চিড়িয়াখানায় আবারও ডিম দিয়েছে উটপাখি নবাবগঞ্জে বাঁশ কাটতে গিয়ে প্রাণ গেলো যুবকের

ঠাকুরগাঁওয়ে নারীদের পথ দেখাচ্ছেন সেতু

প্রকাশিত: ১৬ জানুয়ারি ২০২২  

ঠাকুরগাঁওয়ে নারী উদ্যোক্তাদের ভরসার নাম হচ্ছে সানজিদা শারমিন সেতু। তিনি ঢাকায় চাকরির সুযোগ পেয়েও না করে নিজ জেলায় এসে নারীদের পথ দেখাচ্ছেন।

জানা গেছে, সানজিদা শারমিন সেতু ২০২০ সালের ১৪ মে ‌‌‘ঠাকুরগাঁও অনলাইন উদ্যোক্তা পরিবার’ নামে একটি ফেসবুক গ্রুপ খোলেন। তিনি গ্রুপটির অ্যাডমিন। বর্তমানে এ গ্রুপের সদস্য ৫৬ হাজার। এ গ্রুপের আওতায় নারীদের প্রশিক্ষণের জন্য ‘নিড’ নামে একটি প্রকল্প রয়েছে। সেতুর নিজস্ব ভাড়া বাসায় দেওয়া হয় প্রশিক্ষণ। এর মাধ্যমে লাভবান হচ্ছেন নারী উদ্যোক্তারা। লাখপতিও হয়েছেন অনেকে। 

সফল নারী উদ্যোক্তা মরিয়ম মেরী বলেন, গ্রুপের মাধ্যমে অনুপ্রাণিত হয়ে আমি উদ্যোক্তা হওয়ার ইচ্ছে পোষণ করি। পরে আমি হারিয়ে যাওয়া ঐতিহ্য পাট দিয়ে বিভিন্ন ধরনের পণ্য তৈরি শুরু করি। আলহামদুলিল্লাহ গ্রুপের মাধ্যমে ব্যবসা করতে পেরে আমি অনেক লাভবান হয়েছি।

আরেক সফল নারী উদ্যোক্তা সুবর্ণা রায় বলেন, আমি গ্রুপে হাতে তৈরি গয়না নিয়ে কাজ করি। এতো অল্প সময়ে এতো সুন্দর ব্যবসা করতে পারব কল্পনা করিনি। এই গ্রুপের মাধ্যমে ব্যবসা করে সফল হয়েছি।

গ্রুপের মাধ্যমে ব্যবসা করে সফল হয়েছেন বিউটিশিয়ান লাভলী আক্তার। তিনি বলেন, ঠাকুরগাঁও শহরে আমার লাভলী বিউটি পার্লার  অ্যান্ড ট্রেনিং সেন্টার নামে একটি প্রতিষ্ঠান আছে। করোনায় আমার ব্যবসায় ধস নামে। প্রতিষ্ঠান বন্ধ হয়ে যাওয়ার মতো অবস্থা। ঠিক তখনই ঠাকুরগাঁও অনলাইন উদ্যোক্তা পরিবার গ্রুপটি আমার চোখে পড়ে। গ্রুপের মাধ্যমে ব্যবসা করে সফল হয়েছি। আমি সানজিদা শারমিন সেতু আপুসহ সবার কাছে কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করছি।

গ্রুপের মডারেটর ফারিয়া ওয়াদুদ মোমো বলেন, করোনাকালীন আমরা সবাই নানামুখী সমস্যার সম্মুখীন হয়েছি। সেই ভাবনা থেকেই আমরা ঠাকুরগাঁও অনলাইন উদ্যোক্তা পরিবার নামে একটি অনলাইন প্ল্যাটফর্ম গড়ে তুলি। বাসায় বসে উদ্যোক্তারা পণ্য তৈরি করে গ্রুপের মাধ্যমে বিক্রি করতে পারবেন। আলহামদুলিল্লাহ আমাদের গ্রুপের মাধ্যমে ব্যবসা করে অনেকে সফল ও লাভবান হয়েছেন। 

গ্রুপের অ্যাডমিন সানজিদা শারমিন সেতু বলেন, করোনার সময়ে ঘরে বসে উদ্যোক্তারা যেন তাদের পণ্য বিক্রি করতে পারেন সেই চিন্তা থেকে ঠাকুরগাঁও অনলাইন উদ্যোক্তা পরিবার নামে একটি প্ল্যাটফর্ম গড়ে তুলি। গ্রুপের মাধ্যমে আমরা নতুন নারী উদ্যোক্তা তৈরিতে নিড প্রকল্পের মাধ্যমে প্রশিক্ষণ দিয়ে যাচ্ছি। আমাদের গ্রুপে শতাধিক নারী উদ্যোক্তা আছেন। আমি আমার ভাড়া বাসায় নিজ রুমে প্রশিক্ষণ দিচ্ছি। আশা করছি গ্রুপটির মাধ্যমে হাজারো উদ্যোক্তা তৈরি হবে। আমরা এ পথচলার অগ্রগতির জন্য জেলা প্রশাসকসহ সবার সার্বিক সহযোগিতা কামনা করছি।

উদ্যোক্তাদের কাজ পরিদর্শন করে বিসিক ঠাকুরগাঁওয়ের উপ-ব্যবস্থাপক মো. নুরেল হক বলেন, ঠাকুরগাঁও অনলাইন উদ্যোক্তা পরিবার উদ্যোক্তা তৈরিতে প্রশিক্ষণ দিয়ে থাকে। যেটি যুগোপযোগী বলে আমি মনে করি। নতুন উদ্যোক্তা তৈরিতে সুদূর প্রসারী ভূমিকা রাখবে। আমরা যেহেতু উদ্যোক্তা তৈরিতে কাজ করছি বিসিক ঠাকুরগাঁওয়ের পক্ষ থেকে সকল সহযোগিতা থাকবে।

নারী উদোক্তাদের পণ্য পরিদর্শন করে সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবু তাহের মো. শামসুজ্জামান বলেন, ঠাকুরগাঁও অনলাইন উদ্যোক্তা পরিবার জেলার সবচেয়ে বড় অনলাইন প্ল্যাটফর্ম। উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে তাদের সার্বিক সহযোগিতা করা হবে।কিভাবে আরও নতুন নারী উদ্যোক্তা তৈরি করা ও প্রশিক্ষণ দেওয়া যায় সে বিষয়ে গুরুত্ব দেওয়া হবে। 

– দৈনিক পঞ্চগড় নিউজ ডেস্ক –